বুধবার ১৭ই আগস্ট, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ | ২রা ভাদ্র, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

শিরোনাম
শিরোনাম

শাল্লায় জনতা কর্তৃক থানায় সোপর্দীত সন্ত্রাসীর বিরুদ্ধে মামলা   

মঙ্গলবার, ২৭ অক্টোবর ২০২০     159 ভিউ
শাল্লায় জনতা কর্তৃক থানায় সোপর্দীত সন্ত্রাসীর বিরুদ্ধে মামলা   

শাল্লা (সুনামগঞ্জ) প্রতিনিধি : সুনামগঞ্জের শাল্লা উপজেলা সদর বাজারে  প্রকাশ্য জনসম্মুখে নিরঞ্জন দাস (৩৫ ) নামে এক চা বিক্রেতার উপর সন্ত্রাসী  হামলার দায়ে ফণি তালুকদার (২৮) নামে এক জনকে জনতা আটক করে শাল্লা থানায় সোপর্দ করেছে। সোমবার বেলা সাড়ে ১০ টায় উপজেলা সদর বাজারের সোহেল মিয়ার ঘরের সামনের রাস্তায় এঘটনা ঘটে।

অর্তকিত সন্ত্রাসী  হামলায়  গুরুতর আহত নিরঞ্জন দাসের অবস্থা আশঙ্কা জনক হওয়ায় উন্নত চিকিৎসার জন্য সিলেটে প্রেরণ করেছে শাল্লা হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ। আহত নিরঞ্জন দাস উপজেলার হরিনগর গ্রামের মৃত ভবানী দাসের বড় ছেলে বলে জানা যায়।
উক্ত ঘটনার সঙ্গে  জড়িত সন্ত্রাসী ফনি তালুকদার বাহাড়া ইউনিয়নের নাইন্দা গ্রামের বরুণ তালুকদারের ছেলে। এঘটনায় আহত নিরঞ্জন দাসের ছোট ভাই চিত্তরঞ্জন দাস বাদী  হয়ে শাল্লা থানায় মামলা দায়ের করেন।
মামলার  বিবরণে জানা যায় নিরঞ্জন দাসের মোবাইলে বেশ কয়দিন ধরে  ফনি তালুকদার বিভিন্ন রকমের গালিগালাজ সহ প্রাননাশের হুমকি দিয়ে আসছিল।
এবিষয়ে বাজার কমিটিকে নিরঞ্জন দাস অবগত করা হলে বিষয়টি ফনির বাবা বরুণ তালুকদারকে জানানো হয়। শুনে বরুণ তালুকদার  নিজে এসে ছেলের ভুলের জন্য  নিরঞ্জন দাসের নিকট ক্ষমা চেয়ে বিষয়টি  মিটমাট করেন। এসব বিষয় শুনার পর ফনি ক্ষিপ্ত হয়ে সোমবার বাজারে এসে কোদালের একটি  নতুন বাট (আছার) ৬০ টাকায় ক্রয় করে নিয়ে সোহেল মিয়ার ঘরের সামনে উৎপেতে থাকে।
চা বিক্রেতা নিরঞ্জন দাস,  সুলতানপুর গ্রামের হাবিবুর রহমান হাবিব ও নারকিলা গ্রামের হরিপদ তালুকদারের সঙ্গে বাজারের ভিতরে যাওয়ার পথে ফনি সন্ত্রাসী কায়দায় সবার সামনে তার উপর আক্রমণ চালায়। এতে নিরঞ্জন দাসের ১ টি দাঁত পরে যায় এবং আরও ২ টি দাঁত নড়বড়ে অবস্থায় মাটিতে লুটিয়ে পরেন। মাটিতে পরার সঙ্গে সঙ্গে সন্ত্রাসী ফনি আহত নিরঞ্জন দাসের উপর আর ও ৩ টি আঘাত করে কোদালের বাট দিয়ে। এসময় পাশের লোকজন ছুটে এসে ফনিকে আটক করে পুলিশের হাতে তুলে দেন বলে অভিযোগে উল্লেখ করা হয়েছে।
এনিয়ে বাজার কমিটির সাধারণ সম্পাদক পান্না সরকার বলেন, ফণি তালুকদার সন্ত্রাসী কায়দায় যে ভাবে নিরঞ্জন দাসের উপর আক্রমণ করেছে সেটি খুবই দুঃখজনক।  নিরুপায় হয়ে জনতা আটক করে ফণি কে পুলিশে দিতে বাধ্য হয়েছে।
এবিষয়ে অফিসার ইনচার্জ নাজমুল হক এর সাথে কথা হলে তিনি ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন, আহত নিরঞ্জন দাসের ছোট ভাই বাদী হয়ে ফনি তালুকদারকে আসামি করে মামলা দায়ের করেন। শাল্লা থানায় নিয়মিত মামলা হয়েছে। অপরাধী ফনি তালুকদারকে মঙ্গলবার সকালে  সুনামগঞ্জ আদালতে প্রেরণ করেছেন বলে তিনি এ প্রতিবেদক  জানান।
Facebook Comments Box
advertisement

Posted ৮:২২ অপরাহ্ণ | মঙ্গলবার, ২৭ অক্টোবর ২০২০

Sylheter Janapad |

এ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

advertisement
advertisement
advertisement

এ বিভাগের আরও খবর

আর্কাইভ

শনি রবি সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র
 
১০১১১২
১৩১৪১৫১৬১৭১৮১৯
২০২১২২২৩২৪২৫২৬
২৭২৮২৯৩০৩১  
সম্পাদক ও প্রকাশক
গোবিন্দ লাল রায় সুমন
প্রধান কার্যালয়
আখরা মার্কেট (২য় তলা) হবিগঞ্জ রোড, শ্রীমঙ্গল, মৌলভীবাজার
ফোন
+88 01618 320 606
+88 01719 149 849
Email
sjanapad@gmail.com