শনিবার ৩১শে জুলাই, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ | ১৬ই শ্রাবণ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ

শিরোনাম
শিরোনাম

শায়েস্তাগঞ্জ থানা যাচ্ছে নিজস্ব ভবনে 

বুধবার, ২০ জানুয়ারি ২০২১     56 ভিউ
শায়েস্তাগঞ্জ থানা যাচ্ছে নিজস্ব ভবনে 

মোঃ আব্দুর রকিব, হবিগঞ্জ থেকে : অবশেষে আপন ঠিকানায় যাচ্ছে শায়েস্তাগঞ্জ থানার কার্যক্রম। ২০ বছর ভাড়া বাড়িতে থাকার পর নবনির্মিত ভবনে যাচ্ছে শায়েস্তাগঞ্জ থানার দাপ্তরিক কার্যক্রম।  দীর্ঘ দিন ভাড়া ভবনে থাকার বিষয়টি কর্তৃপক্ষের নজরে এলে নানা প্রতিকুলতা কাটিয়ে ২০১৭ সালে ঢাকা- সিলেট মহাসড়কের পাশে শায়েস্তাগঞ্জের বড়চর মৌজায় প্রায় ৩ বিঘা জমি অধিগ্রহণ করা হয়। অধিগ্রহণকৃত জমিতে ভবন নির্মাণ কাজ শেষে আগামী ফেব্রুয়ারি মাসে উদ্বোধন করা হতে পারে শায়েস্তাগঞ্জ থানার নিজস্ব ভবন।

জানা যায়, ১৯৯৬ সালে আওয়ামী লীগ সরকার গঠন করার পর হবিগঞ্জের কৃতিসন্তান শাহ এএমএস কিবরিয়া টেকনোক্র্যাট  অর্থমন্ত্রী হন । তিনি অর্থমন্ত্রী হওয়ার পর ২০০১ সালে শায়েস্তাগঞ্জ থানা প্রতিষ্ঠা করেন। এর পর  শহরের উদয়ন আবাসিক এলাকায় একটি বাড়ি ভাড়া নিয়ে থানার কার্যক্রম শুরু করেন। পরে ওই ভবনে জায়গার সংকুলান না হওয়ায় একই এলাকার আরেকটি বাড়িতে স্থানান্তর করা হয়। আজ পর্যন্ত ওই ভাড়া বাড়িতেই চলছে থানার কার্যক্রম। অফিসার ইনচার্জ সহ ৫৮ জন পুলিশ রয়েছেন এ থানায়। নতুন ভবনের কাজ ইতিমধ্যেই ৯৫ ভাগ শেষ হয়েছে। থানা ভবনের সীমানা প্রাচীরসহ আরও কিছু ঘষা মাজার কাজ বাকি রয়েছে।

২০১৮ সালে স্বরাষ্ট মন্ত্রনালয়ের অর্থায়নে পাবলিক ওয়ার্কস ডিপার্টমেন্ট (পিডাব্লিউডি) দরপত্র আহ্ববান করলে।  ব্রাক্ষবাড়িয়ার ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠান মেসার্স মোস্তফা কামাল ৭ কোটি ২৫ লাখ টাকায় কাজটি  করার অনুমতি পান। পরে দরপত্রের বাহিরে আরো কাজ করানোয় অতিরিক্ত প্রায় দুই কোটি টাকা ব্যয় বাড়ানো হয়। ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠান মেসার্স মোস্তফা কামালের সাইট ম্যানাজার আবুল খায়ের জানান আমাদের কাজ একেবারেই শেষ পর্যায়ে। অল্প কিছু কাজ বাকি আছে। আশা করছি আগামী মাসে ভবন হস্তান্তর করতে পারবো।

এ বিষয়ে শায়েস্তাগঞ্জ থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) অজয় চন্দ্র দেব বলেন, থানা প্রতিষ্ঠার পর থেকে কার্যক্রম চলে আসছে ভাড়া বাসায়। বর্তমান বাসায় ও সংকুলান হয়না।  নতুন ভবনের কাজ একেবারেই শেষ পর্যায়ে। হয়তো আগামী মাসেই উঠতে পারবো নতুন ভবনে। দীর্ঘ ২০ বছর পর থানা পাচ্ছে আপন ঠিকানা। ধন্যবাদ জনাই মাননীয় প্রধানমন্ত্রী ও স্বরাষ্ট মন্ত্রী মহোদয়কে।  পুলিশের দুঃখ দুর্দশা লাগবে নতুন ভবন বরাদ্দ দিয়েছেন। নতুন ভবনে পুলিশিং কার্যক্রম আরো জোড়দার করতে পারবো। জনসাধারন কে আরো বেশি সেবা দিতে পারবো।

Facebook Comments Box
advertisement

Posted ৫:০১ অপরাহ্ণ | বুধবার, ২০ জানুয়ারি ২০২১

Sylheter Janapad |

এ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

advertisement
advertisement
advertisement

আর্কাইভ

শনি রবি সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র
 
১০১১১২১৩১৪১৫১৬
১৭১৮১৯২০২১২২২৩
২৪২৫২৬২৭২৮২৯৩০
৩১  
সম্পাদক ও প্রকাশক
গোবিন্দ লাল রায় সুমন
প্রধান কার্যালয়
আখরা মার্কেট (২য় তলা) হবিগঞ্জ রোড, শ্রীমঙ্গল, মৌলভীবাজার
ফোন
+88 01618 320 606
+88 01719 149 849
Email
sjanapad@gmail.com