শুক্রবার ২৪শে সেপ্টেম্বর, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ | ৯ই আশ্বিন, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ

রাজনগরে প্রতারক আটক ডলার-রিয়াল বিক্রির নামে প্রতারনা করাই তার পেশা

শুক্রবার, ২৮ ফেব্রুয়ারি ২০২০     86 ভিউ
রাজনগরে প্রতারক আটক ডলার-রিয়াল বিক্রির নামে প্রতারনা করাই তার পেশা

মো. ফরহাদ হোসেন, রাজনগর (মৌলভীবাজার) থেকে : ডলার, রিয়াল কিংবা পাউন্ড বিক্রি করাই তার পেশা। লাখ লাখ টাকার ডলার বিক্রির জন্য তিনি বিভিন্ন হাটে-বাজারে খোঁজে বেড়ান তার কাঙ্খিত খদ্দেরদের। টার্গেট করেন সহজ সরল মানুষকে। পেয়েও যান।

কম মূল্যে বৈদেশিক মুদ্রা বিক্রি করবেন এমন লোভ দেখিয়ে লাখ লাখ টাকা হাতিয়ে নেন সরলমনা মমানুষদের কাছ থেকে। টাকা নিয়ে যে বৈদেশিক মুদ্রার বান্ডেল দেয়া হয় পরে দেখা যায় এসব বান্ডেলের উপরে প্রকৃত নোট থাকলেও ভিতরে পত্রিকার কাগজ। অতঃপর যখন বুঝতে পারেন প্রতারিত হয়েছেন- তখন মাথা চাপড়ানো ছাড়া করার কিছুই থাকে না প্রতারণার শিকার ব্যাক্তির।

বৈদেশিক মুদ্রা বিক্রির নাম করে এমন অভিনব কায়দায় প্রতারণা করছে একটি চক্র। হাশিবুল মিঞা (৩৪) নামের ওই চক্রের এক সদস্যকে আটক করেছে পুলিশ। তার বাড়ি গোপালগঞ্জ জেলার মকসুদপুর থানার পাতারঘাটা গ্রামে। তিনি ওই গ্রামের মো. সামাদ মিঞার ছেলে।

রাজনগর থানা পুলিশ সূত্রে জানা যায়, রাজনগর উপজেলার ফতেহপুর ইউনিয়নের মোকামবাজারের ব্যবসায়ী মিটু মিয়ার দোকানে গত কয়েকদিন থেকে যাতায়াত করছেন ওই প্রতারক হাশিবুল মিঞা। তিনি কাপড় ফেরি করে বিক্রি করেন। থাকেন শ্রীমঙ্গলের ভৈরবাজার এলাকায়। কয়েকদিন যাওয়া আসার সুবাদে তার সাথে সখ্যতা গড়ে উঠে।

এমন সময় প্রতারক হাশিবুল মিঞা তার কাছে দুই বান্ডিল রিয়াল আছে কিন্তু জানাজানি হলে সমস্যা হতে পারে এমন কথা বলেন ব্যবসায়ী মিটু মিয়াকে। এক পর্যায়ে কম টাকায় এসব রিয়াল বিক্রি করে দিবেন বলে মিটু মিয়াকে এসব রিয়াল কিনতে প্রস্তাব দেন। মিটু মিয়ার সাথে কথা হয় ২ লাখ টাকার বিনিময়ে তিনি দুই বান্ডিল রিয়াল বিক্রি করবেন।

সে অনুযায়ী গত মঙ্গলবার প্রতারক হাশিবুল মিঞা রাজনগরের মোকামবাজারে টাকা লেনদেনের জন্য যান। শেষমূহুর্তে বিষয়টি সন্দেহজনক মনেহয় মিটু মিয়ার কাছে। তাই তিনি কয়েকজনকে ডেকে আনেন। এসময় প্রতারকের দেয়া টাকার বান্ডিল খুলে দেখেন উপরে একটি নোট ছাড়া বাকি সবই পত্রিকার কাগজ। পরে উপস্থিত লোকজন ওই প্রতারককে আটকে রাখেন। পরে রাজনগর থানার পুলিশকে খবর দিলে রাজনগর থানার উপপরিদর্শক (এসআই) দিপক দাস তাকে আটক করে থানায় নিয়ে আসেন।

এব্যাপারে রাজনগর থানায় এসআই দিপক দাস বাদী হয়ে মামলা (নং-১০) করেছেন। এদিকে ওই প্রতারক গত ১মাস আগে রাজনগর বাজার থেকে একই কায়দায় ২ লাখ টাকা, মুন্সিবাজার থেকে ৬দিন পূর্বে পান খাইয়ে ৩ লাখ টাকা ও টেংরা বাজারের এক ব্যবসায়ীর কাছ থেকে ৩লাখ টাকা হাতিয়ে নিয়েছে বলে জানা গেছে। তার বিরুদ্ধে বড়লেখা থানায় প্রতারনা মামলা ও খুলনার হরিনাতলা থানায় মাদক আইনে মামলা রয়েছে।

রাজনগর থানার উপপরিদর্শক (এসআই) দিপক দাস বলেন, সে বিভিন্ন স্থানে প্রতারণা করে মানুষদের লাখ লাখ টাকা হাতিয়ে নিচ্ছে বলে জানতে পেরেছি। মূলত ফেরিওয়ালার বেশ ধরে বিত্তশালীদের টার্গেট করে সখ্যতা গড়ে তুলে এই চক্র। পরে সুযোগ বুঝে প্রতারণা করে হাতিয়ে নেয় টাকা। তার বিরুদ্ধে রিমান্ডের আবেদন করা হবে।

Facebook Comments Box
advertisement

Posted ১২:৩২ পূর্বাহ্ণ | শুক্রবার, ২৮ ফেব্রুয়ারি ২০২০

Sylheter Janapad |

এ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

advertisement
advertisement
advertisement

আর্কাইভ

শনি রবি সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র
 
১০
১১১২১৩১৪১৫১৬১৭
১৮১৯২০২১২২২৩২৪
২৫২৬২৭২৮২৯৩০  
সম্পাদক ও প্রকাশক
গোবিন্দ লাল রায় সুমন
প্রধান কার্যালয়
আখরা মার্কেট (২য় তলা) হবিগঞ্জ রোড, শ্রীমঙ্গল, মৌলভীবাজার
ফোন
+88 01618 320 606
+88 01719 149 849
Email
sjanapad@gmail.com