শনিবার ২রা জুলাই, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ | ১৮ই আষাঢ়, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

যাদুকাটা নদীতে বালু উত্তোলকারীকে আটকের পর ছেড়ে দেয়ার অভিযোগ

সোমবার, ০৯ ডিসেম্বর ২০১৯     253 ভিউ
যাদুকাটা নদীতে বালু উত্তোলকারীকে আটকের পর ছেড়ে দেয়ার অভিযোগ

তাহিরপুর সংবাদদাতা:  যাদুকাটা নদীর পাড় কেটে বালু উত্তোলন করার অভিযোগে সুমন মিয়া নামক এক ব্যক্তিকে আটকের পর ছেড়ে দিয়েছেন কর্তব্যরত পুলিশ অফিসার। গতকাল রবিবার সকাল ১১টায় তাহিরপুর উপজেলার বালুপাথর মহাল যাদুকাটা নদীতে এমন অভিযোগ পাওয়া গেছে। যাদুকাটা নদীর পুর্বপাড় লাউড়েরগড় গ্রামের বাসিন্দা নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক অনেকেই জানান,যাদুকাটা নদীতে প্রতিদিন দুইশত সেইভ মেশিন মালিক বালু উত্তোলন করে। প্রতি সেইভ মেশিন থেকে দুই হাজার টাকা করে আদায় করে থাকে বাদাঘাট ইউনিয়নের ঢালারপাড় গ্রামের সুমন মিয়া(৩০),লিয়াকত আলী(৩৫) ওপাশ^বর্তী বিশ^ম্ভরপুর উপজেলার শরিফগঞ্জ গ্রামের হেলাল(৩৫)। এতে প্রায় দৈনিক প্রতিদিন তিন থেকে চার লক্ষ টাকা আদায় করে থাকে এ চক্রটি।
আদায়কৃত টাকা বিভিন্ন সংস্থা নিয়ে থাকে বলে উপজেলাজুড়ে আলোচনা ও সমালোচনা রয়েছে।
এ বিষয়ে অভিযুক্ত সুমন মিয়ার কাছে জানতে চাইলে তিনি বলেন,তিনি সেইভ মেশিন থেকে কোন টাকা আদায় করেন না। তার নৌকাটি নদীর পাড়ে থাকায় পুলিশ তাকে আটক করেছিল। পরে তাহিরপুর থানার অধীনস্থ বাদাঘাট পুলিশ ক্যাম্পের এএসআই বিলাল হোসেন তাকে ছেড়ে দেন।
বাদাঘাট পুলিশ ক্যাম্পের এএসআই বিলাল হোসেন বলেন,যাদুকাটা নদী তীরে সুমনের নৌকা থাকায় তাকে আটকের পর গণ্যমান্য ব্যক্তিগণের সুপারিশে ছেড়ে দেয়া হয়েছে।
বাদাঘাট পুলিশ ক্যাম্পের ইনচার্জ এসআই আমির উদ্দিন বলেন,যাদুকাটা নদীতে কাউকে আটক বা ছেড়ে দেয়ার বিষয়টি তার জানা নেই।

Facebook Comments Box
advertisement

Posted ১:১৫ পূর্বাহ্ণ | সোমবার, ০৯ ডিসেম্বর ২০১৯

Sylheter Janapad |

এ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

advertisement
advertisement
advertisement

আর্কাইভ

শনি রবি সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র
 
১০১১১২১৩১৪১৫
১৬১৭১৮১৯২০২১২২
২৩২৪২৫২৬২৭২৮২৯
৩০৩১  
সম্পাদক ও প্রকাশক
গোবিন্দ লাল রায় সুমন
প্রধান কার্যালয়
আখরা মার্কেট (২য় তলা) হবিগঞ্জ রোড, শ্রীমঙ্গল, মৌলভীবাজার
ফোন
+88 01618 320 606
+88 01719 149 849
Email
sjanapad@gmail.com